মামলার বিষয়ে মুখ খুললেন ন্যান্সি

জনপ্রিয় কন্ঠশিল্পী ন্যান্সির ছোট ভাই শাহরিয়ার আমান সানি। সম্প্রতি তার বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করেছে তার স্ত্রী সামিউন্নাহার শানু। মামলায় আসামি করা হয়েছে ন্যান্সিকেও।

মামলার বিষয়ে ন্যান্সি বলেন, ‘আমি তো আমার ভাইয়ের সংসারে থাকি না। আমি থাকি আমার সংসারে। তিনি আমার ভাইয়ের স্ত্রী ছিলেন। তাদের ডিভোর্স হয়েছে। ডিভোর্সের আগে আমার ভাই তার স্ত্রীর সঙ্গে কেমন আচরণ করেছেন, সেটা আমি কীভাবে জানবো? কিন্তু তিনি আমাকে জড়িয়ে মামলা দিয়েছেন। কেন মামলায় আমাকে জড়ালেন সেটা সবারই জানা। কারন মামলায় আমাকে জড়ালে আলোচিত হবে এটাই হয়তো তারা চাইছেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘গত ২৭ আগস্ট সানি তার স্ত্রী সামিউন্নাহার শানুকে তালাক দিয়েছেন। এই তালাকের কাগজ এরই মধ্যে শানুর হাতে পৌঁছেছে। ডিভোসের্র এতোদিন পর তিনি এ মামলা কেন করছেন জানি না। আর স্ত্রীকে তালাক দেয়ার ব্যাপারে আমি বা আমার স্বামীর সঙ্গে সানি কোনো আলোচনা বা পরামর্শও করেনি। আর আরেকটি ব্যাপার বেশ বুঝতে পারছি, আমাকে দেশের সবার সামনে ছোট করার জন্য, আমার ইমেজের ক্ষতি করার জন্য তারা আমাকে এই মামলায় আসামি করেছে।’

উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার রাতে সানির স্ত্রী সামিউন্নাহার শানু নেত্রকোনা মডেল থানায় এই মামলা দায়ের করেন। পরে শুক্রবার সন্ধ্যায় শহরের সাতপাই পূর্বধলা রোডের ন্যান্সির বাসা থেকে সানিকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

Be the first to comment on "মামলার বিষয়ে মুখ খুললেন ন্যান্সি"

Leave a Reply