নতুন বিমানবিধ্বংসী অস্ত্র তৈরি করেছে উত্তর কোরিয়া

নেতা কিম জং উনের তত্ত্বাবধানে নতুন একটি বিমান-বিধ্বংসী অস্ত্র পদ্ধতি পরীক্ষা করেছে বলে জানিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

https://www.bdnow24.com/category/আন্তর্জাতিক/
সফল পরীক্ষার পর অস্ত্রটির ব্যাপক উৎপাদনের নির্দেশ দিয়ে উৎপাদিত অস্ত্রগুলো সারা উত্তর কোরিয়াজুড়ে মোতায়েনের নির্দেশনা দিয়েছেন কিম, রোববার এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে দেশটির রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা কেসিএনএ।


নতুন বিমান-বিধ্বংসী এই অস্ত্রটি কী ধরনের অস্ত্র এবং কখন এটি পরীক্ষা করা হয়েছে প্রতিবেদনে তার উল্লেখ নেই। কিন্তু দেশটির একাডেমি অব ন্যাশনাল ডিফেন্স সায়েন্স অস্ত্র পরীক্ষাটির আয়োজন করেছিল বলে জানিয়েছে।

জাতিসংঘের বাণিজ্য নিষেধাজ্ঞার আওতায় থাকা উত্তর কোরিয়ার এই সংস্থাটি ক্ষেপণাস্ত্র ও পারমাণবিক অস্ত্র উন্নয়নের কাজে নিয়োজিত বলে ধারণা করা হয়।

কেসিএনএ-র প্রতিবেদনে বলা হয়, “একাডেমি অব ন্যাশনাল ডিফেন্স সায়েন্স এর আয়োজনে নতুন ধরনের বিমান-বিধ্বংসী নিয়ন্ত্রিত অস্ত্র পদ্ধতিটির পরীক্ষা প্রত্যক্ষ করেন কিম জং উন।

“এই অস্ত্র পদ্ধতিটির কার্যকারিতা নিবিড়ভাবে যাচাই করা হয়েছে। সারা দেশে মোতায়েনের জন্য এই অস্ত্র পদ্ধতিটির ব্যাপক উৎপাদন করা উচিত যেন এর মাধ্যমে শত্রুদের আকাশ নিয়ন্ত্রণ করার, আকাশে একাধিপত্য প্রতিষ্ঠার এবং অস্ত্রের সর্বশক্তিমানতার স্বপ্ন পুরোপুরি ভেস্তে যায়।”

অস্ত্র পদ্ধতিটির পরীক্ষাকালে কিমের সঙ্গে তার সামরিক উপদেষ্টারাও উপস্থিত ছিলেন বলে জানিয়েছে কেসিএনএ।

গত বছরের প্রথমদিক থেকে বিভিন্ন ধরনের অস্ত্র পদ্ধতির উন্নয়নের দিকে মনোযোগ দেয় উত্তর কোরিয়া। এরপর থেকে নজিরবিহীন গতিতে তাদের অস্ত্র উন্নয়ন চলতে থাকে। সম্প্রতি কিছু প্রযুক্তিগত অগ্রগতির নমুনা দেখিয়ে তারা একটি মধ্যপাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছে।

উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র ও পারমাণবিক অস্ত্র কর্মসূচীর বিরুদ্ধে জাতিসংঘের নিষেধাজ্ঞা বলবৎ থাকলেও যুক্তরাষ্ট্রের আগ্রাসন থেকে আত্মরক্ষার জন্য এসব কর্মসূচীর প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করে সেগুলো অব্যাহত রেখেছে দেশটি।
উৎস: বিডিনিউজ২৪

Be the first to comment on "নতুন বিমানবিধ্বংসী অস্ত্র তৈরি করেছে উত্তর কোরিয়া"

Leave a Reply