গঙ্গার মত সম্পন্ন হবে তিস্তা চুক্তিও : ওবায়দুল

বাংলাদেশের সাথে প্রতিবেশী দেশ ভারতের রয়েছে অনেক অভিন্ন নদী।  এই নদীর গুলোর ভারত অংশে বাঁধ নির্মাণ করে পানির স্বাভাবিক প্রবাহকে রোধ করার ফলে ওই নদী গুলোর বাংলাদেশ অংশে দেখা দিয়ে পানিশূন্যতা। চাষ কার্যে ব্যাপক ক্ষতির সম্মুখীন হতে হচ্ছে বাংলাদেশী কৃষকদের।  তার পাশাপাশি বর্ষা মৌসুমে দেখা দিচ্ছে অস্বাভাবিক বন্যা।  এই সমস্যা গুলো রোধে বাংলাদেশ এবং ভারতের সাথে পানি চুক্তি সাক্ষর এবং বাস্তবায়ন একান্ত প্রয়োজন।

https://www.bdnow24.com/category/বাংলাদেশ/
নোয়াখালীর কবিরহাট উপজেলার চাপরাশিরহাট ইউনিয়নে নতুন প্রতিষ্ঠিত দক্ষিণ অমরপুর কামরুন নাহার প্রাথমিক ও নিম্নমাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেছেন, তিস্তা চুক্তি এখন শেষ পর্যায়ে। নিয়মকানুন সম্পন্ন করে সময়মতো গঙ্গা চুক্তির মতো তিস্তা চুক্তিও হয়ে যাবে।


 ৪১ বছর মুজিব-ইন্দিরা চুক্তির বাস্তবায়ন কেউ করতে পারেনি। শেখ হাসিনা নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে শুধু চুক্তির বাস্তবায়ন করেননি, সিটমহল বিনিময় চুক্তির বাস্তবায়ন এরই মধ্যে শেষ করেছেন। তাই তিস্তা চুক্তিও হয়ে যাবে। এ নিয়ে কারও দ্বিধাদ্বন্দ্বে থাকার কারণ নেই।

প্রধানমন্ত্রী এপ্রিলে ভারত যাচ্ছেন। তখন যদি না হয়, তারপর যেকোনো সময় হতে পারে। ভারত আর বাংলাদেশ কোনো দূরের দেশ নয়। এ নিয়ে যাঁরা পানি ঘোলা করার চেষ্টা করছেন, তাঁরা তো নিজেরা কিছু করতে পারেননি। এখন নেত্রীকে পদে পদে বাধা দিচ্ছেন।

 ভারতে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী। বাংলাদেশের স্বার্থে ভারতের সঙ্গে চুক্তি হবে প্রকাশ্যে। সমঝোতা স্মারক হবে প্রকাশ্যে। সবকিছু হবে খোলামেলা। এখানে গোপনীয়তার কিছু নেই।

আয়োজিত অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিদ্যালয় ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি বেলায়েত হোসেন, নোয়াখালী-৪ আসনের সাংসদ ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ একরামুল করিম চৌধুরী, নোয়াখালী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ বি এম জাফর উল্যাহ, কবিরহাট উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কামরুন নাহার প্রমুখ সহ আরও অনেকে। 

Be the first to comment on "গঙ্গার মত সম্পন্ন হবে তিস্তা চুক্তিও : ওবায়দুল"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*