খাবারে পেঁয়াজ দেওয়ায় যে অদ্ভুত কান্ড ঘটালেন যুবরাজ!

এক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদ অনুযায়ী, বার বার বারণ করা সত্ত্বেও যুবরাজের খাবারে পেঁয়াজ দিয়ে ফেলেছিলেন রেস্তোরাঁর রাধুনি। সেই খাবার না খেয়ে রাগে ফুঁসতে ফুঁসতে রেস্তোরাঁ ছাড়েন তিনি। এর বেশ কিছুক্ষণ পরেই আবার ওই যুবক ফিরে আসেন ওই রেস্তোরাঁয়। এবার প্রায় দ্বিগুণ রাগে শাসাতে শুরু করেন রেস্তোরাঁর মালিককে। গুলি করে মালিককে খুন করে দেওয়ার হুমকিও দেন যুবরাজ। তার পর মুহূর্তেই রেস্তোরাঁ ভর্তি লোকের সামনে আচমকাই নিজের জামা-প্যান্ট খুলে দৌড়তে শুরু করেন তিনি।
ঘটনার জেরে হতভম্ভ হয়ে যান উপস্থিত সকলে। কী করা উচিত বুঝে উঠতে না পেরে রেস্তোরাঁর এক কর্মী ৯১১-তে ফোন করে পুলিশে খবর দেন। মুহূর্তের মধ্যেই পুলিশ হাজির হয় সেখানে। কিন্তু পুলিশকে দেখেও পাগলামি থামেনি যুবরাজের। শেষমেশ তাকে গ্রেফতার করতে বাধ্য হয় পুলিশ। তার বিরুদ্ধে খুনের হুমকি, অশ্লীল আচরণ, জনসমক্ষে উন্মত্ততা—এমন বেশ কয়েকটি ধারায় মামলা করা হয়েছে।

Be the first to comment on "খাবারে পেঁয়াজ দেওয়ায় যে অদ্ভুত কান্ড ঘটালেন যুবরাজ!"

Leave a Reply